নির্বাচন কমিশনার কে পদত্যাগ করার দাবি জানিয়েছেন : চরমোনাই পীর

দুই সিটি নির্বাচনের ফল প্রত্যাখ্যান করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার এ কে এম নুরুল হুদার পদত্যাগের দাবি জানিয়েছেন, বাংলাদেশ ইসলামী আন্দোলনের শীর্ষ নেতা বা চরমোনাই পীর ।
তিনি বলেন, ভোটাররা সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশে ভোট দিতে পারেন নাই এবং ভোট কারচুপি হয়েছে এবং ইসলামী আন্দোলনের প্রার্থীদের এজেন্টের কেন্দ্র থেকে মারধর করে বের করে দেওয়া হয়েছে, ভোটারদের ভোটদানে বাধা দেওয়া হয়েছে এবং ভোটারদের আংগুলের হাতের ছাপ নিয়ে তাদেরকে বের করে দেওয়া হয়েছে, ইভিএমের মাধ্যমে বিশাল ভোট কারচুপি করা করেছে ।

এবং এজেন্টের কেন্দ্রে না যেতে আগের দিন রাতে এজেন্টের হুমকি দিয়েছে এই অভিযোগ এনে তিনি বলেন আমরা দুই সিটি করপোরেশনের নির্বাচনের ফল প্রত্যাখ্যান করেছি ।

চরমোনাই পীর আরো বলেন ডিজিটাল কারচুপি ও জালিয়াতির মাধ্যমে ভোট শেষ হয়েছে তিনি বলেন যে এই জালিয়াতি ভোট বন্ধ বা বাতিল করে সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে পুনরায় ভোট দেওয়ার দাবি জানাচ্ছি।
নতুন করে সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠানের আয়োজন করার দাবি জানান । যাতে জনগণ তাদের ভোটাধিকার ফিরে পায় তাই তিনি পুনঃনির্বাচনের দাব জানিয়েছেন ।

তিনি আরো বলেন নির্বাচন কমিশনার সরকারের পক্ষ নিয়ে কাজ করছে এবং তিনি বলেন এই নির্বাচন কমিশনারের পদত্যাগ করা উচিত, নির্বাচন কমিশনারের পদত্যাগ করার জন্য আমরা আহ্বান জানাচ্ছি ।

তিনি বলেন নির্বাচন কমিশন আওয়ামীলীগের সাথে মিলে নির্বাচন প্রক্রিয়াকে বা ব্যবস্থা কে ধ্বংস করে দিয়েছে আমরা এ নিয়ে খুব উদ্বেগ প্রকাশ করি এবং দেশের ভবিষ্যৎ নিয়ে আমরা চরমভাবে উদ্বিগ্ন

নির্বাচন নিয়ে এই দেশের জনগণ ও ভোটারদের মাঝে আর কোনো আগ্রহ নেই তারা ভোটের বিশাল অনিয়ম-দুর্নীতি দেখে হতবাক

তিনি আরো বলেন নির্বাচন নিয়ে এ ধরনের তামাশা করার কোন মানে হয় না । এটা শুধুই সাধারণ ভোটারদের অধিকার ছিনিয়ে নেওয়া নয় এটা একটি বড় ধরনের দুর্নীতি ।

চরমোনাই পীর আরো বলেন এ ধরনের নির্বাচন না দিয়ে প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে নিজেই নিজের পছন্দের প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করে দিলেই তো ভালো হতো এরকম ভোট নিয়ে এরকম নির্বাচন নিয়ে তামাশা না করে এবং জনগণের সময় নষ্ট না করাই ভালো তাতে জনগণের অর্থ নষ্ট বা অর্থ ব্যয় হতো না ।

তিনি আরো বলেন জনগণের ভোটের অধিকার জনগণের দাবি ও ন্যায্য অধিকার নিয়ে সবাই প্রস্তুত থাকবেন জনগণের ভোটের অধিকার জনগণকে ফিরিয়ে দেবো আমরা ।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *